মাগুরার বাণী

জীবনের শেষ হয় কিন্ত চাহিদা রয়ে যায়।

জীবনের শেষ হয় কিন্ত চাহিদা রয়ে যায়।

অধ্যক্ষ মাজেদ রেজা বাঁধন, শিক্ষক ও সাংবাদিক।

এইটা পাইলে ওইটা,ওইটা পাইলে সেইটা,সেইটা পাইলে আরেকটা, আরেকটা পাইলে অমুকের চাইতে ভালোটা, অমুকের মত ভালোটা পাইলে সবার চেয়ে সেরাটা, সেরাটা পেইলে সবার ধরা ছোঁয়ার বাইরে যাওয়ার চাহিদা এইভাবে চাহিদার সার্কেল অনবরত সুপারসনিক বেগে ঘুরতেই থাকে।
এভাবেই চাহিদা পূরণ করতে করতে মানুষের জীবন শেষ হয় কিন্তু অতৃপ্ত এই চাহিদার শেষ হয় না। আমরা প্রত্যেকেই ছুটে চলেছি অনন্ত এক চাহিদাকে সঙ্গী করে।

আমাদের এই সীমাহীন চাহিদার শেষ কোথায়? কত অর্থ সম্পদ হলে মানুষ বলবে আমি আর চাইনা। আমার যথেষ্ট হয়েছে।
অভাব থেকে চাহিদা। ব্যক্তি চাহিদা থেকে পারিবারিক চাহিদা। ব্যক্তি চাহিদা অপেক্ষা পারিবারিক চাহিদা বেশি ভয়ংকর হয়। এর থেকেও মারাক্তক চাহিদা হলো ভবিস্যতে রেখে যাওয়ার চাহিদা বা শীর্ষে অবস্থান করে সেখানে টিকে থাকার চাহিদা।

চাহিদা থেকে চাহিদা সৃষ্টি হতেই থাকে। তাইতো চাহিদা পূরণে নিরালস ছুটে চলা। আসলে কি চাহিদা কখনও কোন যুগে কারুর পূরণ হয়েছে? চাহিদা অপূরণীয় একটি আপেক্ষিক বিষয়। জাগতিক চাহিদা অসীম সীমাহীন। এর কোন সীমা পরিসীমা নাই। একটি পূরণ হলে তাৎক্ষণিক হাজারটা হতে থাকে। এই চাহিদা পূরণ করতে মানুষ বেপোয়া হতে থাকে।

মৌলিক চাহিদা এক সময় সখের চাহিদায় ধাবিত হয়। নানামুখি সখ পূরণে লাগামহীন পাগলা ঘোড়ার বেগে দিক বেদিক ছুটে চলা। চাহিদা গাণিতিক নয় জ্যামিতিক হারে বৃদ্ধি পেতে থাকে। তবে ইলেকট্রনিকস যুগে চাহিদা সুপার ফাস্ট ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটরে সাথে পাল্লা দিয়ে বৃদ্ধি পাচ্ছে। ব্যক্তি চাহিদা এক সময় পারিবারিক চাহিদায় হয়ে দাঁড়ায়। পারিবারিক চাহিদা এক সময় ভয়ঙ্কর চাহিদায় রূপান্তরীত হয়।

চাহিদা পূরণের নেশায় মত্ত হয়ে এক সময় হিতাহিত জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। পাপকে বিষধর সাপ ভাবার পরিবর্তে পাপ ও দুর্নীতিকে অর্থ ও ক্ষমতা অর্জনের এক মাত্র হাতিয়ার হিসাবে ব্যবহার করতে থাকে। ন্যায় অন্যায়কে তুচ্ছ ভেবে পাপের সাগরে ডুব দিয়ে চাহিদা পূরণের মনি মানিক্য অনুসন্ধান করতে থাকে। চাহিদা পূরণে ন্যায় অন্যায়, পাপ ভাববার ফুসরত নাই।

ঊর্ধমুখীতা আমাদেরকে অজান্তে আরও দুর্নীতির গহিন অন্ধকারে প্রবেশ করাতে সহায়ক হিসাবে কাজ করে। যা পেয়েছি, যারা আমার থেকে অপেক্ষাকৃত খারাপ অবস্থানে,তাদের দিকে না তকিয়ে, যারা অর্থ, সম্পদে, ক্ষমতায় আমার থেকে ওপরে তাদেরকে আইডল ভেবে সুখ শান্তি বিলাসিতা, ক্ষমতার চিন্তা করতে করতে নিজের বিদ্যমান যেটুকু ছিল এক সময় সেটুকুও হাত ছাড়া হয়ে যায়। তারপরেও চাহিদা রয়েই যায়!

শেয়ার করুন
  •  
    22
    Shares
  • 22
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *